রবিবার, নভেম্বর 29, 2020
Home টোকিও অলিম্পিক ২০২০ ঘোড়ার নাম 'আজাদ কাশ্মীর'ই থাকবে, জানিয়ে দিলেন উসমান খান

ঘোড়ার নাম ‘আজাদ কাশ্মীর’ই থাকবে, জানিয়ে দিলেন উসমান খান

দ্য ব্রিজ ডেস্কঃ আমরা সকলেই জানি পাকিস্তানের ঘোরসওয়ার উসমান খান, সে দেশের প্রথম ব্যক্তি যিনি টোকিও অলিম্পিকে যোগ্যতা অর্জন করেছেন। যদিও তার যোগ্যতা অর্জন নিয়ে অনেক প্রশ্ন উঠেছে। তিনি যে ঘোড়ায় চড়ে, যোগ্যতা অর্জন করেন তার নাম ‘আজাদ কাশ্মীর’। এরপরই ভারতের তরফ থেকে এই নাম রাখার জন্য প্রতিবাদ করা হয়। তারা এ বিষয়ে আইনি পদক্ষেপও নেওয়ার কথা বলেন, ভারতীয় অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের কর্তাদের মতে এই নামের মধ্যে রাজনীতি লুকিয়ে আছে।

এই বিষয়ে অবশেষে মুখ খুললেন উসমান। তার মতে এটি একটি ছোট্ট ঘটনা, এবং এজন্য তিনি তার ঘোড়ার নামটি পাল্টাবেন না।”এটি এমন কোনো বড় ঘটনা নয়, আমি আমার নিজের কাছে সৎ, ভারতীয় কাশ্মীরে যা ঘটছে বা ঘটে তার সঙ্গে এই নামের কোন সম্পর্ক নেই।,” উসমান বলেছেন পাকিস্তানের ডন নিউজ এজেন্সিকে।

Horse Riding 1. (Image: Hindustan Times)

উসমান জানেন তার ঘোড়ার এই নাম নিয়ে যথেষ্ট বিতর্ক হচ্ছে, এবং তিনি এটিকে কাজে লাগিয়ে তার এবং তার ঘোড়ার জন্য একটি ভালো বিনিয়োগ চান, যাতে তারা আসন্ন টোকিও অলিম্পিকে অংশ নিতে পারেন।

“বর্তমানে আমি একটি ভালো স্পন্সর খুঁজছি, যে আমার এবং আমার ঘোড়া আজাদ কাশ্মীরকে টোকিও অলিম্পিকে যেতে সাহায্য করবে। আমি মনে করি এই ঘটনা আমাকে একজন ভালো স্পন্সর খুঁজে পেতে সাহায্য করবে,” যোগ করেন উসমান।

এই পাকিস্তানি ঘোরসওয়ার আরও যোগ করেন,”আমার ঘোড়াটির আগে নাম ছিল হিয়ার টু স্টে। ঘোড়াটিকে কেনার পরে আমি ওর নাম পাল্টে দিন, আর এটা নতুন কিছু নয় আমার অন্যান্য ঘোড়ারও নাম আমি এভাবেই পাল্টেছি। নামটি পাল্টানোর জন্য আমায় এক হাজার মার্কিন ডলারও খরচ করতে হয়েছে কারণ আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে নাম পাল্টানোর এটাই নিয়ম।”